ইউকে সোমবার, ২৭ মে ২০২৪
হেডলাইন

ছাত্রীর সঙ্গে গোপনে প্রেম, তারপর….

ছাত্রীর সঙ্গে গোপনে প্রেম, তারপর….

ইউকে বাংলা অনলাইন ডেস্ক : বিবাহিত হয়েও ছাত্রীর সঙ্গে প্রেম করায় মারধরের শিকার হয়েছেন এক স্কুল শিক্ষক। দেখা করতে গোপনে ওই ছাত্রীর বাড়ির কাছে যাওয়ার পর ধরা পড়েন তিনি। এরপর তাকে হাত-পা বেঁধে বেদম প্রহার করেন ছাত্রীর পরিবারের সদস্যরা। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিম মেদেনীপুরের শ্রীরামপুর গ্রামে।

রোববার (৪ জুন) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজার। মারধরে আহত হয়ে এখন তিনি কলকাতার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

বিবাহিত, আবার শিক্ষক হয়েও ছাত্রীর সঙ্গে প্রেম করায় ওই কলেজ শিক্ষককে আট লাখ রুপি জরিমানাও করেছে গ্রামবাসী। মারধরের পর সালিস বসিয়ে ওই অভিযুক্ত শিক্ষককে এ জরিমানা করা হয়।

আনন্দবাজার জানিয়েছে, পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার চন্দ্রকোনা ২ নম্বর ব্লকের শ্রীরামপুর গ্রামের এক কলেজছাত্রীর সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান কেশপুর থানার নেড়াদেউলের এক স্কুল শিক্ষক। এ বিষয়টি জেনে যান ছাত্রীর পরিবারের সদস্যরা। সঙ্গে তারা এও জানতে পারেন, ওই স্কুল শিক্ষক বিবাহিত। এতে তারা বেশ ক্ষুব্ধ হন।

কয়েকদিন আগে কলেজ ছাত্রীর সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন ওই শিক্ষক। ওই সময়ই তাকে ধরা হয়। এরপর মোটা দড়ি দিয়ে বেঁধে মেরে তাকে রক্তাক্ত করে দেওয়া হয়।

ওই শিক্ষককে মারধর করার সময় কেউ একজন ভিডিও করেন। এরপর তা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেন। ভিডিওতে দেখা যায়, মারধরের কারণে অভিযুক্ত শিক্ষক চেঁচাচ্ছেন। কিন্তু তাকে সহায়তার জন্য কেউ এগিয়ে আসছেন না।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন :

সর্বশেষ সংবাদ

ukbanglaonline.com