ইউকে সোমবার, ২৭ মে ২০২৪
হেডলাইন

মেনস্ট্রুয়াল কাপের জানা-অজানা

ইউকে বাংলা অনলাইন ডেস্ক :আজকাল অনেক নারীরাই পিরিয়ডের সময় স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহার করেন। কেউ কেউ আবার ট্যাম্পনও ব্যবহার করে থাকেন। সে তুলনায় মেনস্ট্রুয়াল কাপ খুব বেশি ব্যবহৃত না হলেও এটি কিন্তু বেশ নিরাপদ ও সুবিধাজনক। মেনস্ট্রুয়াল কাপ যেমন পরিবেশ দূষণ কমায়, তেমনই স্বাস্থ্যের জন্যও ভালো।

বর্তমান সময়ে অনেকেই এটা ব্যবহার করে থাকেন। অনেকেই আবার মেনস্ট্রুয়াল কাপ ব্যবহার করতে ভয় পান। চলুন জেনে নেই মেনস্ট্রুয়াল কাপ ব্যবহার করা কেন বেশি সুবিধাজনক:

স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহারের সময়ে রক্ত জামাকাপড়ে লেগে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। তবে মেনস্ট্রুয়াল কাপ ব্যবহারের ক্ষেত্রে সেই ঝুঁকি কম। মেনস্ট্রুয়াল কাপ পরে হাঁটাচলা, ঘুমানো, খেলাধুলা সবই অনেক বেশি সহজ হয়।
স্যানিটারি প্যাডের পরিবর্তে মেনস্ট্রুয়াল কাপ অনেক বেশি পরিবেশবান্ধব। মেনস্ট্রুয়াল কাপ পুনর্ব্যবহারযোগ্য। একটি কাপ চাইলে পাঁচ বছর পর্যন্তও ব্যবহার করা যায়।
জানতে হবে, কাপ পরিষ্কার করার সঠিক নিয়ম। প্রতি মাসে ঋতুস্রাব শুরু হওয়ার আগে কাপটিকে স্টেরিলাইজ করে নিতে হবে। ব্যবহারের পরে মিনারেল ওয়াটার দিয়ে পরিষ্কার করে পুনরায় স্টেরিলাইজ করে নিয়ে নির্দিষ্ট পাউচে ভরে রাখুন। খোলা রাখবেন না।

স্যানিটারি প্যাডের তুলনায় মেনস্ট্রুয়াল কাপে বেশি সাশ্রয় হয় ।
মেনস্ট্রুয়াল কাপে যোনিতে সংক্রমণের ঝুঁকি কম থাকে। এক্ষেত্রে কোনো জ্বালা ভাব অনুভূত হয় না।
স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহার করলে যোনির চারপাশে র‍্যাশ বেরিয়ে যাওয়ার ঝুঁকি থাকে। দীর্ঘক্ষণ একই প্যাড ব্যবহার করলে সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকটাই বেড়ে যায়। এতে জরায়ু-মুখের ক্যানসারের ঝুঁকিও বেড়ে যায়। তাই প্যাডের তুলনায় মেনস্ট্রুয়াল কাপ ব্যবহার করা স্বাস্থ্যকর।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন :

সর্বশেষ সংবাদ

ukbanglaonline.com